নারী থেকে পুরুষ হয়ে বিয়ে করলেন মাহবুবা আক্তার’কে

0 24

ভালবাসা এক অদ্ভত নাম। ভালোবাসা যুগে যুগে ইতিহাস তৈরি করে গেছে। যুগ পরিবর্তন হয়েছে কিন্তু ভালোবাসা একই কিন্তু তাঁর রুপ পরিবর্তন হয়েছে বিভিন্ন ভাবে। 

যুগে যুগে ভালোবাসার জন্য মানুষ কত কিছুই না করেছে। কেউ জীবন নিয়েছে, কেউ দিয়েছে। আবার কেউ বানিয়েছে তাজমহল, কেউ রাজপ্রাসাদ ছেড়ে আশ্রয় নিয়েছে বটতলায়। কিন্তু নাটোরের বড়াইগ্রামে ঘটেছে এক ভিন্ন রকম ঘটনা।  ভালোবাসার মানুষটিকে নিজের করতে নারী থেকে পুরুষ হলেন   ‘শাহরিয়ার সুলতানা’। তিনি নাটরের বাসিন্দা,বড়াইগ্রাম উপজেলার নাটোরের লক্ষীকোল বাজার এলাকা। পুরুষ হয়ে ভালোবাসার মানুষটিকে বিয়ে করে গত ৩০ আগস্ট ইতিহাস গড়ে ঘরে তুলেছেন তিনি। 

এলাকাবাসী জানান, “পুলিশের অবসরপ্রাপ্ত সহকারী উপ-পরিদর্শক সাজেদুর রহমানের সংসারের ৩৫ বছর আগে জন্ম নেন।  শাহরিয়ার সুলতানা  বড়াইগ্রাম থানার লক্ষীকোল বাজারের বাসিন্দা সাজেদুর রহমান। তবে কলেজে পড়া অবস্থায় তার শারীরিক কিছু পরিবর্তন দেখা দেয় শাহরিয়ার সুলতানা’র।  শাহরিয়ার সুলতানা এ পরিস্থিতিতে বিএ পাস করে বাড়িতেই থাকতেন।

শরীরের গঠন অনেকটা পুরুষের মত হয়ে যায় এ সময়ের মধ্যেই। 

শাহরিয়ার সুলতানা আমাদের জানান, “সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ২ বছর আগে বগুড়া সদর উপজেলার শিববাটি এলাকার মাহবুবা আক্তারের সাথে পরিচয় হয়। পরিচয়ের এক পর্যায়ে আমি তাকে আমার সমস্যাগুলো জানাই। সে আমার পাশে এগিয়ে আসে। চিকিৎসার পরামর্শ দেয়ার পাশাপাশি সারাজীবন পাশে থাকার আশ্বাস দেয় সে। পাশপাশি চিকিৎসার জন্য অর্থনৈতিকভাবে সহযোগিতা করে সে। এক বছর আগে ভারতে একটি হাসপাতালে স্তন অপারেশন এবং জেন্ডার ডিসফোরিয়া অপারেশন করি।

এরপর আস্তে আস্তে সম্পূর্ণ পুরুষে রূপান্তরিত হয়ে যাই।”

শাহরিয়ার সুলতানা আরও বলেন, আমার বর্তমান নাম শাহরিয়ার জাইন।  আমি পুরাপুরি পুরুষ হওয়ার পর আমাদের মধ্যে সম্পর্ক আরও শক্ত হয়। আমরা দু’জনই উভয় পরিবারকে আমাদের বিয়ের বিষয়ে জানাই। এতে দুই পরিবারই সম্মতি দেন। আমাদের গত ৩০ আগস্ট বিয়ে হয়েছে।

বিষয় টা অবাক হলেও সত্য। আসলে পৃথিবীতে এমন কিছু ঘটনা ঘটে যা আপনি আমি কারন খুজে হয়তো খুব একটা ভালো ফলাফল আশা করা যায় না। 

যাইহোক এবার আশা যাক মাহবুবা আক্তার এর কাছে। মাহবুবা আক্তার শাহরিয়ার জাইন এর বর্তমান স্ত্রী। মাহবুবা আক্তার আমাদের জানান, আমাকে শাহরিয়ার জাইনের সততা মুগ্ধ করছে। পাশাপাশি তাকে আমার অনেক ভালো মানুষ বলে মনে হয়েছে। তাই তাকে বিয়ে করার সিদ্ধান্ত নিয়েছি।এরপর আমরা দুই পরিবারের সম্মতিতেই ৩০আগষ্ট বিয়ে আমাদের। তবে বিয়ের পর আমরা সুখেই আছেন” বলে জানান তিনি।

মাহবুবা আক্তার তাদের জন্য সকলের কাছে দোয়া কামনা করেন।

বড়াইগ্রামের পাটোয়ারী জেনারেল হাসপাতালের প্রধান চিকিৎসক সিদ্দিকুর রহমান পাটোয়ারী বলেন, হরমোনের কারণে শরীরের আংশিক পরিবর্তন হতে পারে। তবে আধ্যাত্মিক জ্ঞান অর্জন ভুল তথ্য। আধ্যাত্মিক চিকিৎসার নামে পুরোটাই ভণ্ডামি। এভাবে কোনো মানুষের লিঙ্গ পরিবর্তনের সঙ্গে চিকিৎসা বা আধ্যাত্মিক জ্ঞান পাওয়া সম্ভব না। নাটোরের এসপি লিটন কুমার সাহা বলেন, এ বিষয়ে এখনো কোনো অভিযোগ পাইনি। অভিযোগ পেলে সুষ্ঠু তদন্তের মাধ্যমে আইনি ব্যবস্থা নেয়া হবে।

ভালোবাসা কিন্তু একটা অদ্ভত শব্দ। এক এক সময়ে এক এক রুপ ধারন করে এই ভালোবাসা। 

সবার মাঝে বেচে থাকুক ভালোবাসা। 

 

Leave A Reply

Your email address will not be published.